জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলার পরবর্তী শুনানি ১২ জানুয়ারি

জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় আত্মপক্ষ সমর্থনে বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার অসমাপ্ত বক্তব্য শেষ করতে আগামী ১২ জানুয়ারি পরবর্তী তারিখ ধার্য করেছেন আদালত। পরে জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলার শুনানির জন্যও একই তারিখ ধার্য করা হয়েছে। দুদকের আইনজীবীর দাবি এই মামলায় কালক্ষেপন করছে আসামী পক্ষ।

জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট মামলায় আত্মপক্ষ সমর্থনে অসমাপ্ত বক্তব্য দিতে বৃহস্পতিবার সকালে বিশেষ জজ আদালতে হাজিরা দিতে আসেন বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়া।

এই মামালায় আত্মপক্ষ শুনানিতে অংশ না নিয়ে বেগম খালেদা জিয়ার আইনজীবীরা সময় আবেদন করেন। তারা বলেন, পুনরায় সাক্ষ্য নেয়ার বিষয়ে উচ্চ আদালতের নির্দেশনা আসলে তারা শুনানিতে অংশ নিতে চান। আদালত এক সপ্তাহ সময় মঞ্জুর করে। এতে বিরোধীতা করেন দুদকের আইনজীবী।

জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট মামলায়ও হাজিরা দেন বেগম জিয়া। এই মামলার তদন্ত কর্মকর্তা নুর মোহাম্মদের সাক্ষ্য নেয়ার আবেদন করেন বেগম জিয়ার আইনজীবীরা। আদালত তা মঞ্জুর করে।

উল্লেখ্য জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্টের নামে অবৈধভাবে ৩ কোটি ১৫ লাখ ৪৩ হাজার টাকা লেনদেনের অভিযোগ এনে খালেদা জিয়াসহ চারজনের বিরুদ্ধে ২০১০ সালের ৮ আগস্ট তেজগাঁও থানায় একটি মামলা করে দুদক। জিয়া অরফানেজ ট্রাস্টের ২ কোটি ১০ লাখ ৭১ হাজার ৬৪৩ টাকা আত্মসাতের অভিযোগ এনে খালেদা জিয়া ও তারেক রহমানসহ ছয়জনের বিরুদ্ধে ২০০৮ সালের ৩ জুলাই রমনা থানায় আরও একটি মামলা করে দুদক।

Leave a Reply