তেলের দাম কমলেও সন্তুষ্ট হতে পারছেনা কৃষক ও সাধারণ ব্যবসায়ীরা

জ্বালানী তেলের দাম কমলেও পুরোপরি সন্তুষ্ট হতে পারছেনা কৃষক ও সাধারণ ব্যবসায়ীরা। দাম কমানোর প্রভাব কৃষিপণ্য উৎপাদনে খুব একটা পড়বে না বলে দাবী তাদের। জ্বালানি বিশেষজ্ঞরাও বলছেন, নতুন দাম খুব বেশি যৌক্তিক হয় নি। তবে, এই সুযোগে যেনো মধ্যস্বত্যভোগীরা ফায়দা লুটতে না পারে, সেজন্য সরকারকে নজরদারি বাড়ানোর পরামর্শ দেন অর্থনীতিবিদরা।

কাঠফাটা রোদ ও বৃষ্টিতে ভিজে মাটির বুক চিড়ে সোনালী এমন ফসল ফলায় কৃষকরা। রোদে ঘামে একাকার হয়ে যাদের শ্রমে আসে একএকটি ফসলের কনা তেলের দাম কমায় খুব বেশি খুশি কি এসেছে তাদের মনে।

বেশ কিছু দিন ধরে তেলের দাম কমানোর খবরে আশায় ছিলেন কৃষিকাজের সাথে জড়িতরা। কিন্তু পেট্রোল-অকটেনের দাম বেশি কমালেও ডিজেল-কোরোসিনের দাম তুলনামুলক হ্রাস না পাওয়ায় কৃষদের রয়েছে মিশ্র প্রতিক্রিয়া। তেমনি রাজধানীতে এক বছর ধরে চায়ের দোকান দিয়েছে রুবেল ইসলাম। কিন্তু কেরসিনের দাম খুববেশি না কমায় তার মনেও সন্তুষ্টি আসে নি খুব বেশি। তবে পেট্রোল অকটেনের নতুন দামে এর ব্যাবহারকারীরা রয়েছেন বেশ খোশ মেজাজে।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, এ দাম খুব প্রভাব ফেলবে না সাধারণ ভোক্তার মাঝে। কিন্তু এ অর্থনীতিবিদ মনে করেন, দাম কমালেই শুধু চলবে নাা নজরদারি বাড়াতে মধ্যস্বত্যভোগীদের প্রতি নজর দিতে হবে।

বিশ্বের সাথে তাল মেলাতে জন বান্ধব হওয়ারও পরামর্শ এ বিশেষজ্ঞদের।

Leave a Reply