আজানের ধ্বনিতে মুখরিত গোটা নিউজিল্যান্ড
Ekushey Television

আজানের ধ্বনিতে মুখরিত গোটা নিউজিল্যান্ড

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ১০:৪৯ এএম, ২২ মার্চ ২০১৯ শুক্রবার | আপডেট: ১০:৫৩ এএম, ২২ মার্চ ২০১৯ শুক্রবার

আজানের ধ্বনিতে মুখরিত গোটা নিউজিল্যান্ড

আজানের ধ্বনিতে মুখরিত গোটা নিউজিল্যান্ড

এক শ্বেতাঙ্গ বর্ণবাদীর হামলায় ক্রাইস্টচার্চের দুটি মসজিদে অর্ধশত মুসল্লি নিহত হওয়ার এক সপ্তাহ পর আজ শুক্রবার দেশটিতে ২ মিনিট নীরবতা পালন করা হয়েছে। একইসঙ্গে আজান ও নামাজ সরাসরি সম্প্রচার করা হয় সে দেশের টিভিতে। এসময় আযানের ধ্বনিতে মুখরিত হয় গোটা নিউজিল্যান্ড।

দেশজুড়ে যখন আজানের ধ্বনি প্রতিধ্বনিত হচ্ছিল, প্রধানমন্ত্রী জাসিন্দা আরডানসহ আহত ব্যক্তিরা মসজিদের বিপরীত পাশের পার্কে দাঁড়িয়ে নীরবতা পালন করেন। গত সপ্তাহে এ পার্ক থেকেই মসজিদের হত্যাকাণ্ড শুরু হয়েছে।

সাদা টুপি পরিহিত এক মুয়াজ্জিন দুপুর দেড়টায় আল্লাহু আকবার ধ্বনি তুলে আজান দেন। তখন কয়েক হাজার লোক ক্রাইস্টচার্চের হ্যাগলি পার্কে ২ মিনিট নীরবতা পালন করেন।

এদিকে ক্রাইস্টচার্চের আল নুর মসজিদের ইমাম জামাল ফাওদা বলেছেন, দুটি মসজিদে অর্ধশত মুসল্লি নিহত হওয়ার ঘটনা একদিনে ঘটেনি। কিছু রাজনৈতিক নেতা, সংবাদমাধ্যম এবং অন্যদের মুসলিমবিদ্বেষী প্রচারের ফল হচ্ছে এই হত্যাকাণ্ড।-খবর গার্ডিয়ানের

শুক্রবার জুমার নামাজের খুতবায় তিনি বলেন, গত সপ্তাহের এই হত্যাকাণ্ড প্রমাণ করেছে, সন্ত্রাসবাদের কোনো রঙ নেই, বর্ণ নেই ও ধর্ম নেই। তিনি বলেন, শ্বেতাঙ্গ বর্ণবাদ ও উগ্রবাদ বিশ্বের জন্য বড় হুমকি হয়ে দাঁড়িয়েছে। এখনই যার অবসান হওয়া উচিত।

‘ইসলাম বিদ্বেষের কারণেই এ হত্যাকাণ্ড। নিউজিল্যান্ডের বিশ্বের বিভিন্ন দেশের সরকারের প্রতি আমার অনুরোধ, আপনারা ঘৃণা প্রচার ও ভয়ের রাজনীতি পরিহার করুন।’

ক্রাইস্টচার্চে হামলায় অর্ধশত মুসল্লি নিহত হওয়ার এক সপ্তাহ পার হয়ে গেছে। আজ শুক্রবার আল নুর মসজিদটি মেরামতের পর প্রথম জুমার নামাজ আদায় হয়েছে। এতে হাজার হাজার মুসল্লি অংশ নিয়েছেন।


টিআর/